সাংবাদিক নির্যাতনের প্রতিবাদে লালমনিরহাটে মানববন্ধন

খোরশেদ আলম সাগর :: বাংলানিউজের স্টাফ করেসপন্ডেন্ট আজিজুল হককে মারধরের ঘটনায় সামরিক আদালতে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশের (বিজিবি) ৪৯ ব্যাটালিয়নের কমান্ডিং অফিসার (সিও) লেফটেন্যান্ট কর্নেল আরিফুল হকের বিচার দাবি করেছেন লালমনিরহাটে কর্মরত সাংবাদিকরা।

বৃহস্পতিবার (১০ আগস্ট) সকাল ১১টার দিকে লালমনিরহাট বুড়িমারী মহাসড়কের পাশে আদিতমারী স্মৃতিসৌধ প্রাঙ্গণে আয়োজিত প্রতিবাদ ও মানববন্ধন কর্মসূচি থেকে এ দাবি জানানো হয়।

ঘণ্টাব্যাপী অনুষ্ঠিত এ কর্মসূচিতে লালমনিরহাট জেলায় কর্মরত প্রিন্ট-ইলেক্ট্রনিক এবং অনলাইন মিডিয়ার কর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

মানববন্ধনে বক্তারা সাংবাদিক আজিজুলকে মারধরের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানান এবং জড়িত বিজিবি কর্মকর্তার দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করেন।

মানববন্ধন চলাকালে অনুষ্ঠিত সমাবেশে আদিতমারী প্রেসক্লাবের সভাপতি ফরহাদ আলম সুমন বলেন, ‘বিজিবি যেহেতু সীমান্তে দায়িত্ব পালন করে সেহেতু দায়িত্বে অবহেলা এবং তা নিয়ে প্রতিবেদন করায় সাংবাদিককে মারধরের ঘটনায় আন্তর্জাতিক পরিমণ্ডলে বাহিনীটির সুনাম ক্ষুণ্ন হয়েছে। এ ঘটনায় জড়িত বিজিবি কর্মকর্তার সামরিক আদালতে বিচার করতে হবে। মারধরে আহত সাংবাদিকের চিকিৎসার ব্যয়ভার বহন করতে হবে বিজিবিকেই।’

লালমনিরহাট প্রেসক্লাবের সভাপতি মোফাখখারুল ইসলাম মজনু বলেন, বিজিবি কর্মকর্তার হাতে সাংবাদিক লাঞ্ছনার ঘটনাকে ছোট করে দেখলে চলবে না। এর সুদূরপ্রসারি প্রভাব আছে। সরকারসহ সবাইকে মনে রাখতে হবে, এর বিচার না হলে কেউ এমন কর্মকর্তাদের হাত থেকে রেহাই পাবে না। তাই সময় থাকতে এ ব্যাপারে সতর্ক হতে হবে।

এসময় ন্যাক্কারজনক এ ঘটনার প্রতিবাদে সর্বস্তরের সাংবাদিকদের ঐক্যবদ্ধ হওয়ার আহ্বান জানান তিনি।

মফস্বল সাংবাদিক ফোরাম লালমনিরহাট ইউনিটের সাধারণ সম্পাদক আসাদুজ্জামান সাজু বলেন, আমরা প্রতিনিয়ত মার খেয়ে যাচ্ছি। আবার ৫৭ ধারায় যখন-তখন মামলা দিয়ে হয়রানি করা হচ্ছে। বেনাপোলের ঘটনা দেশের গণমাধ্যমের জন্য কলঙ্কজনক। আমরা অবিলম্বে সুষ্ঠু তদন্তের মাধ্যমে যশোরসহ সারাদেশে সব সাংবাদিক নির্যাতনের বিচার চাই। অন্যথায় সাংবাদিক সমাজ কঠোর আন্দোলনে নামতে বাধ্য হবে।

মানববন্ধনে আরও বক্তব্য রাখেন- এটিএন বাংলা প্রতিনিধি আনোয়ার হোসেন স্বপন, ডেইলি ইনডিপেনডেন্ট প্রতিনিধি আবু হাসনাত রানা, দৈনিক যুগান্তর প্রতিনিধি মিজানুর রহমান দুলাল, ইত্তেফাক প্রতিনিধি সুলতান হোসেন, প্রতিদিনের সংবাদ প্রতিনিধি জিন্নাতুল ইসলাম জিন্না, ভাদাই ইউপি সদস্য আব্দুল কাদের মিন্টু প্রমুখ।

মানববন্ধনে সঞ্চালনা করেন ডিবিসি নিউজের লালমনিরহাট প্রতিনিধি মাজেদ মাসুদ।

এসময় মানববন্ধনে আরও উপস্থিত ছিলেন- বনিক বার্তা প্রতিনিধি মোয়াজ্জেম হোসেন, পুর্বপশ্চিম বিডি প্রতিনিধি রবিউল ইসলাম রবি, বাংলাদেশ সময় প্রতিনিধি রেজাউল করিম রাজ্জাক, আজকালের খবর প্রতিনিধি আজিজুল ইসলাম বারী, আলোকিত দেশ প্রতিনিধি এমএ কাহার বকুল, বিজয় নিউজ প্রতিনিধি শাহিনুর ইসলাম প্রান্ত, স্বাধীন নিউজ প্রতিনিধি খুরশীদ আলম প্রমুখ।

উল্লেখ্য, বৃহস্পতিবার (৩ আগস্ট) ‘বেনাপোল সীমান্তে অরক্ষিত বাংলাদেশের প্রবেশদ্বার’ শিরোনামে একটি প্রতিবেদন করেন বাংলানিউজের স্টাফ করেসপন্ডেন্ট আজিজুল। এ প্রতিবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে পরদিন শুক্রবার (০৪ আগস্ট) বিজিবির সিও আরিফুল সাংবাদিক আজিজুলকে বেনাপোল বিজিবি ক্যাম্পে ডেকে নিয়ে অকথ্য ভাষায় গালমন্দ ও বেধড়ক মারধর করেন।

Pin It

Comments are closed.