ভারতীয় জ্বালানিবাহী ট্রাক-লরি বাংলাদেশের সড়ক ব্যবহার করতে পারবে

বন্যার কারনে মানবিক অবস্থা বিবেচনা করে বাংলাদেশ সরকার বাংলাদেশের সড়ক পথ ব্যবহারের মাধ্যমে আসাম থেকে জ্বালানি তেলবাহী ভারতীয় ট্রাক-লরি আগামী ৩০ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত ত্রিপুরায় যাতায়াত করার অনুমতি দিয়েছে।

আজ বৃহস্পতিবার দু’দেশের মধ্যে এ সংক্রান্ত একটি সমঝোতা স্মারক (এমওইউ) স্বাক্ষরিত হয়েছে। বাংলাদেশের পক্ষে সড়ক ও জনপথ অধিদপ্তরের অতিরিক্ত প্রধান প্রকৌশলী এবং ভারতের পক্ষে ইন্ডিয়ান ওয়েল কর্পোরেশন লিমিটেডের (আইওসিএল) নির্বাহী পরিচালক এ সমঝোতা স্মারকে স্বাক্ষর করেন।
পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তি আজ এ কথা বলা হয়।

এতে জানানো হয়, সমঝোতা স্মারক অনুযায়ী, ভারতীয় জ্বালানি বাহী ট্রাক-লরি বাংলাদেশের তামাবিল সীমান্ত চেক-পোস্ট দিয়ে প্রবেশ করে সিলেট ও মৌলভীবাজারের প্রায় ১৪০ কিলোমিটার পথ অতিক্রম করে মৌলভীবাজার জেলার চাতলাপুর চেকপোষ্ট দিয়ে বের হয়ে ত্রিপুরায় প্রবেশ করবে। ত্রিপুরায় জ্বালানি তেল সরবরাহের পর খালি যানবাহনগুলো চাতলাপুর চেকপোষ্ট দিয়ে পুন:প্রবেশ করে একই পথে ভারতে ফিরে যাবে।

উল্লেখ্য,উল্লিখিত সড়কের ব্যবহার ও রক্ষণাবেক্ষনের ব্যয় বাবদ নির্ধারিত ফি প্রদানে ভারত সম্মত হয়েছে।

Pin It

Comments are closed.