প্রকাশিত সংবাদের প্রতিবাদ

গত ২২জুন ২০১৭ইং তারিখে রংপুর থেকে প্রকাশিত দৈনিক পরিবেশ পত্রিকার ১ম পৃষ্ঠার ১ম কলামে “কর্তার আশির্বাদে একাই চার পদে” শিরোনামে সংবাদটি আমার দৃষ্টিগোচর হয়েছে। আদিতমারী উপজেলার ভাদাই ইউনিয়নের নিকাহ রেজিষ্ট্রারের মৃত্যুজনিত কারনে পদটি শুন্য হলে সেখানে একজন অতিরিক্ত নিকাহ রেজিষ্ট্রারকে দায়িত্ব দেয়ার প্রয়োজন পড়ে। তাই সেখানে ভেলাবাড়ি ইউনিয়নের নিকাহ রেজিষ্ট্রার এজাজুলকে দায়িত্ব দেয়া হয়। কিন্তু সংবাদে বলা হয় স্থানীয় সাংসদ সমাজকল্যান প্রতিমন্ত্রী নুরুজ্জামান আহমেদ ওই ইউনিয়নের অতিরিক্ত দায়িত্ব পার্শ্ববর্তী পলাশী ইউনিয়নের নিকাহ রেজিষ্ট্রার এনকে লিটন মোল্লাকে দেয়ার নির্দেশ প্রদান করলে “টাকার বিনিময়ে মন্ত্রীর নির্দেশ ও বিধিকে বৃদ্ধাঙ্গলী দেখিয়েছেন জেলা রেজিষ্ট্রার”। আমি অতিরিক্ত দায়িত্ব নিতে অপারগতা প্রকাশ করায় পরবর্তীতে জেলা রেজিষ্ট্রার ভেলাবাড়ি ইউনিয়নের নিকাহ রেজিষ্ট্রার এজাজুলকে অতিরিক্ত দায়িত্ব প্রদান করেন। “টাকার বিনিময়ে মন্ত্রীর নির্দেশ ও বিধিকে বৃদ্ধাঙ্গলী দেখিয়েছেন জেলা রেজিষ্ট্রার” সংবাদটি সম্পুর্ন মিথ্যা, বানোয়ট ও ভিত্তিহীন। কতিপয় কুচক্রি মহল সাংবাদিকদের ভুল তথ্য প্রদান করে উক্ত মিথ্যা, বানোয়াট ও ভিত্তিহীন সংবাদটি প্রকাশ করেছে। আমি উক্ত প্রকাশিত সংবাদের জোড় প্রতিবাদ জানাচ্ছি।

প্রতিবাদকারী
এনকে লিটন মোল্লা
নিকাহ রেজিষ্ট্রার, পলাশী ইউনিয়ন
আদিতমারী, লালমনিরহাট।

Pin It

Comments are closed.