চলন্ত বাসের ছাদ থেকে পড়ে শিশু নিহত

অনলাইন ডেস্ক :: নীলফামারীর ডিমলা উপজেলার ডালিয়া-জলঢাকা সড়কে চলন্ত বাসের ছাদ থেকে থেকে পড়ে আব্দুল খালেক (১৪) নামে এক শিশু হেলপার নিহত হয়েছে। সে লালমনিরহাটের হাতিবান্ধা উপজেলার মিলন বাজারের সমছের আলী পুত্র। রোববার বিকেলে ৪টার দিকে ডিমলা উপজেলা ডালিয়া ১নং বাজার এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

প্রত্যক্ষদর্শী বিবরণে জানাগেছে, মাহি এন্টারপ্রাইজ নামে একটি বাস ডিমলার শুটিবাড়ী বাজার থেকে রংপুর যাচ্ছিল। এ সময় ডালিয়া ১নং বাজার এলাকায় ১৪/১৫ বছরের একটি শিশু ওই বাসের ছাদ থেকে পড়ে ঘটনাস্থলেই মারা যায়। পরে খোঁজ নিয়ে জানা যায়, ছেলে শিশুটি লালমনিরহাটের হাতিবান্ধা উপজেলার মিলন বাজারের সমছের আলী পুত্র। ঘটনার পরপরই বাসটি পালিয়ে যায়।

নিহত শিশুটির পিতা সমছের আলী মোবাইল ফোনে বলেন, গত ঈদের দিন রাগ করে আব্দুল খালেক বাড়ী থেকে বের হয়ে গিয়ে রংপুর- নীলফামারী যাতায়াতকারী একটি বাসে হেলপার হিসেবে কাজ নেয়।

উপজেলার খালিশা চাপানি ইউপি চেয়ারম্যান আতাউর রহমান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, বিকালে ডালিয়া বাজারে বাসের উপর থেকে পড়ে একটি বাসের হেলপারের মৃত্যু হয়েছে।তার বয়স ১৪/১৫ বছর হবে।

এ রিপোর্ট লেখার সময় ডিমলা থানার পুলিশ ঘটনা স্থলে রয়েছে।

ডিমলা থানার ওসি তদন্ত মফিজ উদ্দিন শেখ বলেন, নিহত খালেকের পরিবারকে মোবাইলে আসার জন্য সংবাদ দেয়া হয়। সূত্র: নয়াদিগন্ত

Pin It

Comments are closed.