গোলাম আযমের ছেলে আটক

একাত্তরে মানবতাবিরোধী অপরাধে আমৃত্যু দণ্ডপ্রাপ্ত জামায়াত নেতা মরহুম গোলাম আযমের ছেলে সেনাবাহিনী থেকে চাকরিচ্যুত ব্রিগেডিয়ার জেনারেল আমান আজমিকে আটক করা হয়েছে। তিনি গোলাম আযমের চতুর্থ সন্তান।

সোমবার রাত পৌনে ১২টার দিকে রাজধানীর বড় মগবাজারের বাসা থেকে সাদা পোশাকে আইন শৃংখলা বাহিনী পরিচয়ে তাকে আটক করে নিয়ে যাওয়া হয়।

একটি সূত্র জানিয়েছে, তার বিরুদ্ধে জঙ্গিবাদ এবং সন্ত্রাসীদের উস্কানি দেয়ার অভিযোগ আছে। তাছাড়া সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে উস্কানি দেয়ার অভিযোগও রয়েছে তার বিরুদ্ধে। এসব অভিযোগে তাকে আটক করা হয়েছে।

স্থানীয় লোকজন জানিয়েছে, রাত ১১টার কিছু আগে আইন শৃংখলা বাহিনীর সদস্যরা বড় মগবাজার কাজী অফিস গলিতে গোলাম আযমের বাড়ি ঘিরে ফেলে। এসময় ওই গলিতে সাধারণ মানুষের চলাচল বন্ধ করে দেয়া হয়।

বেশ কিছুক্ষণ ধরে ডাকাডাকি করলেও ভেতর থেকে কোনো সাড়া-শব্দ পাওয়া যায়নি। একপর্যায়ে রাত সোয়া ১১টার দিকে আইন শৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্য পরিচয়ে কিছু লোক বাড়ির গেট ভেঙে ভেতরে প্রবেশ করে।

আশপাশের বাসিন্দারা জানান, ওই বাসার ভেতর থেকে তারা চিৎকার চেঁচামেচির শব্দ শুনতে পান। পরে আমান আজমিকে নিয়ে দ্রুত বাসার ভেতর থেকে বের করে এনে গাড়িতে তোলা হয়। এর পর তিনটি গাড়ি ঘটনাস্থল ত্যাগ করে।

ওই গাড়ি বহরের সঙ্গে একটি মোবাইল জ্যামারবাহী গাড়িও ছিলো।

জানতে রমনা বিভাগের উপ-পুলিশ কমিশনার মারুফ হোসেন সরদার যুগান্তরকে বলেন, ‘আটকের বিষয়টি আমরা নিশ্চিত নই। কারা অভিযান চালিয়েছে সে বিষয়টিও স্থানীয় থানাকে অবহিত করা হয়নি।’

রমনা থানার ওসি মশিউর রহমান রাতে যুগান্তরকে বলেন, ‘এ ধরণের একটি খবর পেয়ে আমরা দ্রুত ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠাই। তবে পুলিশ পৌঁছানোর আগেই আমান আজমিকে নিয়ে যায় বলে শুনেছি।’

তিনি জানান, ‘কারা তাকে নিয়ে গেছে তা আমরা নিশ্চিত হতে পারেনি। এ ব্যাপারে পরিবারের পক্ষ থেকে থানায় কোনো অভিযোগ করা হয়নি। তারপরও বিষয়টি আমরা খোঁজ খবর নিচ্ছি।’

Pin It

Comments are closed.